যারা যুদ্ধাপরাধীদের লালন পালন করেছে, তাদের হাতে জাতীয় পতাকা তুলে দিয়েছে, তাদেরও বিচার হবে, জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

যারা যুদ্ধাপরাধীদের লালন পালন করেছে, তাদের হাতে জাতীয় পতাকা তুলে দিয়েছে, তাদেরও বিচার হবে, জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

যারা যুদ্ধাপরাধীদের লালন-পালন করেছে, রক্তে রঞ্জিত পতাকা যুদ্ধাপরাধীদের হাতে তুলে দিয়েছে, তারাও সমান অপরাধী- তাদের বিচারও এ মাটিতে হবে বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।  বিএনপির প্রতি ইঙ্গিত করে তিনি বলেন, অবৈধ ভাবে ক্ষমতা দখলকারীরা মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বিকৃতি শুরু করে, এরাই যুদ্ধাপরাধীদের রাজনৈতিক ভাবে প্রতিষ্ঠার করে বলেও মন্তব্য করেন শেখ হাসিনা।

শহীদ বুদ্ধাজীবি দিবস উপলক্ষে বুধবার রাজধানীর কৃষিবিদ ইন্সটিটিউটে আয়োজিত আওয়ামী লীগের আলোচনা সভার যোগ দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রী বলেন, শুধু যুদ্ধাপরাধীদের নয়, যারা যুদ্ধাপরাধীদের লালন-পালন করেছে, তারাও সমান অপরাধী- তাদেরও বিচার এ মাটিতে হবে।
প্রধানমন্ত্রী অভিযোগ করেন একাত্তরের পরাজিতরাই ৭৫ তৈরী করেছিল এবং তারাই মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বিকৃতকারী। প্রধানমন্ত্রী তার বক্তব্যে যুদ্ধাপরাধীদের এই লালন-পালনকারীদের পরিচয় তুলে ধরেন।

যত ষড়যন্ত্রই হোক যুদ্ধাপরাধীদের বিচার চলতে থাকবে বলেও জানান প্রধানমন্ত্রী। আলোচনা সভায় প্রধানমন্ত্রী ছাড়া শহীদ পরিবারের সদস্যরাও বক্তব্য রাখেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

20 + six =

আরও

রাজনীতির আরেক নক্ষত্র সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত

চলে গেলেন বাংলাদেশের সংসদীয় রাজনীতির আরেক নক্ষত্র সুরঞ্জিত