পর্দা নামলো ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলার

পর্দা নামলো ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলার

পর্দা নামলো ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলার। শেষদিন জনসমুদ্রে পরিণত হয় বাণিজ্য মেলা প্রাঙ্গণ। হুলস্থূল কেনাকাটাও করেছেন ক্রেতা-দর্শনাথীরা।যার মাধ্যমে মেলায় ১১৩ কোটি টাকার পণ্য বিক্রি ছাড়াও ২৪৪ কোটি টাকার রপ্তানি আদেশ পাওয়ার কথা জানিয়েছে আয়োজকরা।

মেলার পরিবেশ ও বিকিকিনিতে বিস্মিত জনপ্রশাসনমন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম জানিয়েছেন, আগামীতে আরো বড় পরিসরে মেলা আয়োজন করা হবে। এজন্য পূর্বাচলে স্থায়ী প্রদর্শনী কেন্দ্র গড়ে তোলার কথা জানান তিনি।

একেতো সাপ্তাহিক ছুটি, তারপর মেলার শেষদিন। তাই শনিবার সকাল থেকেই ভিড় শুরু হয় ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলায়। শেষ মুহূর্তে জনসমুদ্রে পরিণত হয় মেলা প্রাঙ্গণ।

বিশেষ মূল্য ছাড়ের আশায় শেষ মুহূর্তেও মেলায় যান অনেকে। ক্রেতাদের নিরাশ করেননি বিক্রেতারাও। একেবারে শেষ সময় হওয়ায় কম লাভেও পণ্য ছেড়ে দিয়েছেন অনেকে। ক্রেতারা যে যেভাবে পেরেছেন কিনেছেন পছন্দের পণ্য। দাম কিছুটা কম হওয়ায় ঘর-গৃহস্থালির সামগ্রি ছাড়াও ঘরের দরজাও কিনেছেন কেউ কেউ।

কোনো কোনো ক্রেতা পণ্যের মান নিয়ে প্রশ্ন তুললেও বেচাকেনায় খুশি দেশি-বিদেশি স্টল মালিকরা।

দর্শনার্থীদের পদচারণায় মুখর ৩৫ দিনের বাণিজ্যমেলার মিলনমেলা ভাঙ্গলো শনিবার। সমাপনী অনুষ্ঠানে আয়োজকরা জানান, এবার মেলায় ১১৪ কোটি টাকার পণ্য বিক্রি হয়েছে। রপ্তানি আদেশ মিলেছে ২৪৩ কোটি টাকার। শুধু রপ্তানি বাণিজ্যে নয়, দেশ সব দিক দিয়ে দুর্বার গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে বলে জানান জনপ্রশাসনমন্ত্রী।

মেলায় অংশ নেয়া ৫৯০টি স্টল ও প্যাভিলিয়নের মধ্য থেকে নির্বাচিত স্টলমালিকদের হাতে পুরষ্কার তুলে দেন সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

five × 3 =

আরও

চবি ছাত্র আলাউদ্দীন হত্যা; দম্পতিসহ গ্রেফতার ৪

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র আলাউদ্দীন হত্যায় জড়িত চার আসামীকে