বিনামূল্যের অফার, বুঝে-শুনে নিন

অতি লোভে, তাঁতী নষ্ট- প্রবাদবাক্যটি আবারও তার সত্যতা প্রমাণ করেছে। নামকাওয়াস্তে থাকা এক অনলাইন শপের অফারের ফাঁদে পড়ে নিজের জীবন নরক করে তুলেছেন ভারতের গুজরাটী এক নারী।

ফোনে বিনামূল্যে অন্তর্বাস পাওয়ার এক ম্যাসেজে আকৃষ্ট হয়েছিলেন ঐ নারী। তিনি সরল মনে ওই ম্যাসেজের অফারটি গ্রহণ করেন। এরপরই তার জীবন নরকে পরিণত হয়। অবশেষে পুলিশের সাহায্য নিয়ে এই বিপদ থেকে রক্ষা পেয়েছেন তিনি।

অনলাইন শপিংয়ের জগতে নানা ধরণের অফার থাকে। আসলে অনলাইন শপগুলোর নামে কখন যে কি প্রতারণা লুকিয়ে আছে তার কোন খোঁজ আমরা কেউই রাখি না। গত বছর ডিসেম্বরের ৩ তারিখে নিজের ফোনে একটি ম্যাসেজ পান গুজরাটের ওই নারী। সেখানে বলা হয়েছিল, ক্রেতাদের উপহার হিসাবে বিনামূল্যে অন্তর্বাস দেওয়া হবে। তিনি লোভে পড়ে সেই অফারটি পেতে নিজের নাম নথিভুক্ত করেন।

পার হয় আরও বেশ কয়েক সপ্তাহ। আরেকটি ম্যাসেজ পান তিনি। সেখানে বলা হয় তার ছবি পাঠাতে। একটি হোয়াটস অ্যাপ নম্বরে তিনি ছবি পাঠিয়ে দেন। তারপরেই ওই অফারদাতা অসভ্য আচরণ করতে শুরু করেন ওই নারীর সঙ্গে।

বারবার তাকে ফোন করে নানা কথার ছলে আকর্ষন তৈরির চেষ্টা করে ঐ ব্যক্তি। এক পর্যায়ে সে শর্ত দেন, নগ্ন ছবি পাঠালে তবেই অফারটি পাবেন ঐ নারী। অর্থাৎ বিনামূল্যে অন্তর্বাস পেতে হলে নগ্ন ছবি পাঠাতে হবে। এতে বিরক্ত হয়ে উঠেন ঐ নারী। কিছুটা আঁচ করতে পারেন তাঁর অসভ্যতা। ফলে তিনি ্রাআর অফরটি নিতে ।অগ্ররহী নন বলে জানিয়ে দেন। কিন্তু এতে হিতে বিপরীত হয়। লোভের বশবর্তী হয়ে না জেনে-বুঝে, নিজের তথ্য অন্যকে দিয়ে দেয়ারখেসারত তাকে দিতে হচ্ছে। ঐ অফারদাতা ধৈর্য না হারিয়ে, একের পর এক অশ্লীল মেসেজ পাঠাতে শুরু করেন ঐ নারীর ফোনে।

উপায়ন্তর না দেখে, পুলিশের শরণাপন্ন হন ওই নারী। পুলিশ ইতিমধ্যে অভিযুক্ত ব্যক্তিকে আটক করেছে।

তাই মোবাইলে কোনও ম্যাসেজ বা বিজ্ঞাপন দেখে সহজে প্রলুব্ধ হবে না। সাড়া দেয়ার আগে কয়েকবার ভাবুন। ওই নারীর মতো ভুল করে পস্তানোর চাইতে আগেই সাবধান হওয়া ভালো নয় কি? আর মনে রাখা জরুরি- লোভে পাপ, পাপে মৃত্যু। সুতরাং লোভে বশে নিজের মৃত্যুকূপ নিজে তৈরি করবেন না।

You may also like

বাইডেন-ট্রুডো’র প্রথম বৈঠক

প্রথমবারের মতো বৈঠক করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন