৩ কোটি ভ্যাকসিন সংগ্রহের কাজ চলমানঃ প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, করোনা মোকাবিলায় তিন কোটি ভ্যাকসিন সংগ্রহের কার্যক্রম চলমান রয়েছে। শিগগিরই টিকাদান কার্যক্রম শুরু হবে। সরকারের সময়োপযোগী এ সব দিক নির্দেশনা, উদ্যোগ, পরিকল্পনা গ্রহণ ও বাস্তবায়নের ফলে দেশে করোনার সংক্রমণ ও মৃত্যুহার বিশ্বের অন্য দেশের তুলনায় কম বলেও মন্তব্য করেন।

বুধবার জাতীয় সংসদে প্রধানমন্ত্রীর জন্য নির্ধারিত প্রশ্নোত্তর পর্বে লিখিত জবাবে শেখ হাসিনা আরো বলেন, দেশের বর্তমান করোনা পরিস্থিতি এবং অর্থনীতিতে তার প্রভাব বিবেচনায় রেখেই অষ্টম পঞ্চবার্ষিক পরিকল্পনা অনুমোদন দেয়া হয়েছে। করোনার বিরূপ প্রভাবকে প্রশমিত করতে তাৎক্ষণিক ও স্বল্পমেয়াদী পদক্ষেপের কারণে কর্মসংস্থানের সুযোগ নিশ্চিত হয়েছে, পাশাপাশি কর্মকর্তাদের বিদেশ সফর ও বিলাসবহুল ব্যয়কে নিরুৎসাহিত করা গেছে। প্রধানমন্ত্রী জানান, করোনার সময়ে ছয় হাজার ৯৯০ জন চিকিৎসক, পাঁচ হাজার ২৪জন সিনিয়র স্টাফ নার্স, ৩৮১জন ফার্মাসিস্ট, ২০২ জন মেডিকেল টেকনোলজিস্ট নিয়োগ দেয়ার পাশাপাশি চার হাজার ২১৭ জন চিকিৎসককে করোনাসংক্রান্ত তথ্য ও চিকিৎসা প্রদানের জন্য হটলাইনে যুক্ত করা হয়েছে। সরকারিভাবে, ঢাকার ৫৪টি এবং ঢাকার বাইরে ৩৭সহ মোট ৯১টি পরীক্ষাগারে নমুনা পরীক্ষা চলমান রয়েছে। করোনায় সৃষ্ট সংকট মোকাবিলায় বিভিন্ন সেক্টরের, বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের জীবন এবং জীবিকা রক্ষায় এক লাখ ১২ হাজার কোটি টাকার ২১টি প্রণোদনা প্যাকেজের কথাও উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী।

You may also like

করোনার টিকা কর্মসূচিসহ স্বাস্থ্যখাতে দেশের ঈর্ষণীয় সাফল্য

স্বাধীনতার পর বাংলাদেশ পার করেছে প্রায় অর্ধশতাব্দী। যুদ্ধবিধ্বস্ত