আর্ন্তজাতিক মাতৃভাষা দিবসে বাংলাভিশনের পর্দায় আপনাদের জন্য রয়েছে বিশেষ নাটক- ‘ভাষা’

আর্ন্তজাতিক মাতৃভাষা দিবসে বাংলাভিশনের পর্দায় আপনাদের জন্য রয়েছে বিশেষ নাটক- ‘ভাষা’

আর্ন্তজাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে নাটক ‘ভাষা’ বাংলাভিশনে প্রচারিত হবে ২১ ফেব্র“য়ারি রাত ৯টা ০৫মিনিটে। শফিকুর রহমান শান্তনু-এর রচনা ও সাইদুর রহমান রাসেল-এর পরিচালনায় নাটকটিতে অভিনয় করেছেন ফজলুর রহমান বাবু, মেহজাবিন চৌধুরী, তৌসিফ মাহবুব প্রমুখ।

গল্প সংক্ষেপ: এই নাটকের গল্প দুজন পৃথক দৃষ্টিভঙ্গির মানুষের মানসিক বিরোধের। ভাষা ও সুমন। এসময়ের দুজন তরুণ তরুণী কিন্তু তাদের দৃষ্টিভঙ্গি সম্পূর্ণ দু’রকম। ভাষা বড় হয়েছে বিদেশে। কিন্তু তার স্বপ্ন দেশ নিয়ে। অন্যদিকে সুমন বড় হয়েছে দেশে। কিন্তু দেশ নিয়ে তার মনে বিরাট হতাশা। গ্রামে বাপ-দাদার বিশাল সম্পত্তি বিক্রি করে বিদেশে পাড়ি জমানোর স্বপ্ন তার। তার ধারণা, এদেশে কোন ফিউচার নাই। বিদেশী দালাল ধরে একটা স্কলারশীপের ব্যবস্থা করে সে আমেরিকা যাওয়ার সমস্ত ব্যবস্থা পাকা করে ফেলে। এই বাউন্ডুলে সুমনের গ্রামের সমস্ত সম্পত্তি কিনতে এসে পরিচয় হয় ভাষা গ্র“পের কর্ণধার ভাষার। ভাষা বিদেশে মানুষ হলেও দেশের প্রতি একটা আজন্ম টান তার শৈশব থেকেই। তাই পড়ালেখা শেষ করে চলে আসে দেশে বাপ-দাদার ব্যবসার হাল ধরতে। ফ্যাক্টরি ও ফার্ম হাউজ করার জন্যে সুমনের জমিটা কতটুকু কাজের হবে তা যাচাই করার জন্যে ভাষা চায় এই গ্রামে দুদিন থেকে গ্রামের হাওয়া বুঝতে। সুমন যে কোন মূল্যে ভাষার কাছে তার সমস্ত জমি বিক্রি করতে চায়। তাই এই দুদিন ভাষাকে গোটা গ্রাম ঘুরিয়ে তাদের জমিগুলো দেখায়। ঘুরে দেখাতে গিয়ে পরিচয় ঘটে গ্রামের বিভিন্ন মানুষের সাথে। যেমন এক স্কুল শিক্ষককে নাকি সুমনের বাবা কথা দিয়েছিল স্কুলের পাশে খানিকটা জমি দেবে ভাষা শহীদদের স্মরণে শহীদ মিনার করার জন্যে। এগ্রামে কোন শহীদ মিনার নেই। সব শুনে ভাষা কথা দেয়, এজমি কিনে যেটুকু জমি শহীদ মিনারের জন্যে দরকার হয় সে দিয়ে দেবে। ভাষা খেয়াল করে, সুমন বিদেশ প্রেমিক হলেও গ্রামের মানুষ তাকে ভীষন ভালোবাসে। সে ছোট ছোট ছেলেমেয়েদের ফ্রিতে পড়ায়। এসময় হঠাৎ করে ঘটে অঘটন! সুমনের পাসপোর্ট হারিয়ে যায়। আসলে কি পাসপোর্ট হারিয়েছে নাকি চুরি হয়েছে? এভাবে গল্প এগিয়ে যেতে থাকে তীব্র নাটকীয়ভাবে। একইসাথে চলতে থাকে দুজন ভিন্ন দৃষ্টিভঙ্গির মানুষের ভেতর অলিখিত নীরব যুদ্ধ। যুদ্ধে কে জয়ী হয়? দেশাত্ববোধ ও মাতৃভাষার প্রতি মমতা নাকি সুবিধাবাদী বিদেশপ্রীতি? পাশাপাশি বর্তমান সময়ের নাগরিক অস্থিরতা, ভাষাবিকৃতি ও ছেলেমেয়েদের নামকরণের ক্ষেত্রে বিদেশী ভাষাকে প্রাধান্য দেয়ার বিষয়টি ফুটে ওঠে গল্পে তীর্যকভাবে। শেষ পর্যন্ত যা আমাদের গৌরব উজ্জ¦ল ইতিহাসকে মনে করিয়ে দেয় এক ট্রাজিক মুহূর্তের মধ্য দিয়ে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও

দিনাজপুরে জেএমবির দুই সদস্য গ্রেফতার

দিনাজপুরের রানীগঞ্জ থেকে জেএমবির সারওয়ার-তামিম গ্রুপের সক্রিয় দুই