পাইকারিতেই পেঁয়াজের কেজি ছুঁয়েছে আড়াইশ’ টাকা

পাইকারি বাজারে দেশি পেঁয়াজের দাম কেজি প্রতি আরো দশ টাকা বেড়ে আবারো দাঁড়িয়েছে আড়াইশ’ টাকায়। তবে চাহিদা কম থাকায় কমেছে মিসর ও চীনা পেঁয়াজের দাম। অন্যদিকে, অস্বাভাবিক রকমের বেড়েছে এলাচের দাম। বিক্রি হচ্ছে ৩২০০ টাকা প্রতি কেজি। সরকারি তৎপরতায় দাম বাড়া কমলেও চাল এখনো বিক্রি হচ্ছে সেই বাড়তি দামেই। তবে ধীরে ধীরে কমে আসছে শীতের নানারকম সবজির দাম। সপ্তাহ দুই কেজিতে দুইশো এর কাছাকাছি ঘোরাঘুরি করে দেশি পেঁয়াজের দাম আবারো আড়াইশ’ টাকা ছুঁলো। চীনা, তুরস্ক পেঁয়াজে ঝাঁঝ খুঁজে পাওয়া যায়নি বলে সেগুলোর দাম এখন কমতির দিকে। তবে আদা আর রসুনের দাম এক সপ্তাহের ব্যবধানে কিছুটা কমেছে।

বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে সবচেয়ে জরুরি যে চাল, তার বাজারে আপাত স্থিতি এসেছে তাও বাড়তি দামেই। হঠাৎ বাড়া দাম আর না কমার পেছনে মিল মালিকদেরকেই দায়ী করছেন খুচরা ব্যবসায়ীরা। এক সপ্তাহের ব্যবধানে কেজিতে ৬০০ টাকা বেড়ে এলাচের দাম এখন বত্রিশশ’ টাকা প্রতি কেজি! এক মাস আগেও যা ছিলো ষোলশ’ টাকা। তবে সরবরাহ বাড়ার সাথে সাথে গুটি গুটি পায়ে নীচে নামছে শীতের সবজির দাম। সাইমুল হক, বাংলাভিশন, ঢাকা।

You may also like

জেলায় জেলায় হোম কোয়ারেন্টিনের সংখ্যা বাড়ছে

নোয়াখালীতে সর্দি-কাশি, জ্বর আক্রান্ত হয়ে এক যুবক মারা