ভিসা ও টিকেট জটিলতায় হজে যাওয়া নিয়ে সংকট চলছেই

ভিসা ও টিকেট জটিলতায় হজে যাওয়া নিয়ে সংকট চলছেই। শনিবারও একটি ফ্লাইট বাতিল হয়েছে। এনিয়ে বাতিল হলো ২৫টি হজ ফ্লাইট। অতি মুনাফালোভী কিছু এজেন্সি সৌদি আরবে বাড়ি ভাড়া না নেয়ায় ভিসা জটিলতায় পড়েন এই হজযাত্রীরা।আর ভিসা না থাকায় টিকিটও মেলেনি তাদের। এতে অর্ধেকের বেশি যাত্রী এখনো দেশেই। তাদের সবাইকে সৌদি পাঠানো চ্যালেঞ্জ মনে করছে হজ অফিস।

এবছর হজে যেতে রেজিস্ট্রেশনভুক্ত হয়েছেন এক লাখ ২৭ হাজার মুসল্লি। গত ২৪ জুলাই শুরু করে এখন পর্যন্ত সৌদি আরব গেছেন ৫৮ হাজার একশো ৮৮ জন। এখনো দেশে আছেন কমবেশি ৭০ হাজার। যে হারে ফ্লাইট বাতিল হচ্ছে, তাতে অনেক মুসল্লীই হজ নিয়ে দুশ্চিন্তায়।

কিছু হজ এজেন্সি সৌদি আরবে সঠিক সময়ে বাড়ি ভাড়া করেনি। বাড়ি ভাড়া না করলে ভিসা মেলে না। ভিসা না থাকলে টিকিট কাটা যায় না। সৌদি আরবের হঠাৎ মোয়াল্লেম ফি বাড়ানোর সিদ্ধান্তকেই সংকটের কারণ হিসেবে দেখছে এজেন্সিগুলো। রয়েছে ডিও ইস্যু ও ভেরিফিকেশন করাতে হজ অফিসের গড়িমসির অভিযোগও।

এ অভিযোগ অস্বীকার করেছেন হজ পরিচালক। জানিয়েছেন, ভিসা হয়ে গেলেও প্রায় ৪০ হাজার যাত্রীর টিকেট কেনেনি এজেন্সিগুলো। যে কোন মূল্যে মুসল্লীদের হজে পাঠানোর ব্যাপারে আশাবাদী তিনি।

প্রথম ১৪ দিনে অন্তত ৭০ হাজার যাত্রীকে সৌদি আরবে পাঠানোর বাধ্যবাধকতা পূরণ করতে পারেনি কর্তৃপক্ষ। অনিয়মে অভিযুক্তগুলোসহ সব এজেন্সির কার্যক্রম মনিটরিং হচ্ছে বলে জানানো হয়েছে হজ অফিসের পক্ষ থেকে।

You may also like

পবিত্র হজে যাওয়ার জন্য এখনো অপেক্ষায় প্রায় ৪৬ হাজার যাত্রী

পবিত্র হজে যাওয়ার জন্য রাজধানীর আশকোনায় এখনো অপেক্ষায়