ঈদে বাংলাভিশনের পর্দায় বিশেষ নাটক- স্বপ্ন এনেছি কুড়িয়ে

গাজী মামুন-এর চিত্রনাট্য ও সাইদুর রহমান রাসেল-এর পরিচালনায় নাটক ‘স্বপ্ন এনেছি কুড়িয়ে’ বাংলাভিশনে প্রচার হবে ঈদের ৫ম দিন রাত ১১টা ৫৫ মিনিটে। নাটকে অভিনয় করেছেন মেহজাবিন, ইরফান সাজ্জাদ, ফজলুর রহমান বাবু প্রমুখ।

কাহিনী সংক্ষেপ: বেলাল সাহেব একটা চাকুরি করে, সেটা দিয়ে খুব ভালো রোজগার হয়না। বড় মেয়ে নিশি ম্যানেজমেন্টে মাস্টার্স করছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে, আর ছোট মেয়ে শশী সবে কলেজ ফার্স্ট ইয়ারে। নিশি আর শশী দুজন দুই রকম। যদিও নিশি বেশ সুন্দরী শিক্ষিত মেয়ে হলেও তাকে দেখে কখনোই এখনকার যুগের মেয়ে বলে মনে হয়না। খুবই সাদামাটা তার পোষাক আাষাক, কথাবার্তা, চালচলন। তবে শশী আবার তেমন না, সে বাবার বাজেটের মধ্যেই ফ্যাশন মেইনটেইন করে আধুনিক থাকার চেষ্টা করে। নিশির বয়স ২৫ হয়ে যাবে এই কয়েক মাস পড়ে, বিয়ে দেয়ার জন্য বেশ কয়েকটা পাত্রও এসে দেখে গেছে, কিন্তু কেউই পছন্দ করছে না। নিশিকে পাত্র দেখতে আসলে নিশির কথাবার্তায় তারা অবাক হয়। নিশির মোবাইল নেই, ফেসবুক নেই, টিভি সিরিয়াল তেমন দেখেনা, বন্ধু বান্ধব নেই, সাজগোজ, শপিং, কোনটারই অভ্যাস নেই, এগুলো আবার অনেক পাত্র পক্ষই বিশ্বাস করেনা। এই যুগের মেয়ে এমন হলে চলে? সুতরাং একের পর এক নিশিকে দেখতে আসা পাত্ররা আগ্রহ হারিয়ে ফেলে। বিয়ে হচ্ছেনা সে টেনশন থাকলেও বেলাল সাহেব নিশিকে কোনভাবেই বুঝতে দেয় না তার ভেতরের চাঁপা কষ্টটা।
একদিন হঠাৎ বেলাল সাহেব বাসায় প্রচন্ড অসুস্থ হয়ে পড়েন। মহল্লার মাস্তান সোহেল নিশির বাবার অসুস্থ অবস্থা দেখে এগিয়ে আসে। যে কয়দিন বেলাল সাহেব হাসপাতালে ছিলো সোহেল প্রতিদিন সার্বক্ষনিক সেবা করে গেছে। সোহেলও নিশির কথাবার্তা শুনে আর সবার মতোই অবাক হয়, সে নিশিকে বলে এ যুগের মেয়ে তুমি, একটা মোবাইল থাকলে শশীকেও ফোন করে জানাতে পারতে, ডাক্তার ডাকা যেতো, আমাকেও ফোন দিতে পারতে। সোহেলের সাথে মিশতে মিশতে নিশি ভেবে অবাক হয়, সবাই কেন সোহেলকে বখাটে মাস্তান বলে? এই মানুষটার মধ্যে মানবতা তীব্র, পরোপকারী মানুষ। সোহেলের কথায় নিশির মন পরিবর্তন হয়, সে এখন মোবাইল ফোন ব্যবহার করা শুরু করে দিয়েছে, একটা ফেসবুক একাউন্টও খুলে দিয়েছে শশী। বাকীটা জানা যাবে নাটকের শেষে।

– গুলশান হাবিব রাজীব

You may also like

এশিয়া কাপের অঘোষিত সেমিফাইনালে উঠেছে বাংলাদেশ

আফগানিস্তানকে ছিটকে দিয়ে এশিয়া কাপের অঘোষিত সেমিফাইনালে উঠেছে