জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী শাম্মী আক্তারের দ্বিতীয় মৃত্যুবার্ষিকী আজ

গানের আকাশের উজ্জ্বল নক্ষত্র শাম্মী আক্তার, বছর দুই ধরেই দূর আকাশের তারা। গত দু’বছর ধরেই দূর নক্ষত্র মাঝে বসে, ভক্ত হৃদয়ে বেজে উঠা নিজের কণ্ঠধ্বনি নিশ্চয়ই শোনেন তিনি। ২০১৮ সালের আজকের এই দিনে তিনি পরপারের যাত্রী হয়েছিলেন।  আজ ১৬ জানুয়ারি, জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী শাম্মী আক্তারের দ্বিতীয় মৃত্যুবার্ষিকী। দীর্ঘদিন মরণব্যাধি ক্যান্সারের সঙ্গে লড়াই করে আজকের এই দিনে তিনি রাজধানীর চামেলীবাগের নিজ বাসায় মারা যান।

শাম্মী আখতার ১৯৫৫ সালের ২২ সেপ্টেম্বর যশোরের তালতলা গ্রামে নানাবাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন কিন্তু তিনি বেড়ে উঠেছেন খুলনায়। বাবার বদলির কারণে দেশের কয়েকটি জেলায় বিভিন্ন শিক্ষকের কাছে সংগীতের তালিম নেওয়ার সুযোগ পান তিনি। ১৯৭৭ সালের ২২ ফেব্রুয়ারি ফোক সঙ্গীত শিল্পী আকরামুল ইসলামের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন তিনি। তাদের দুই সন্তান কমল ও সাজিয়া।

ছয় বছর বয়সে তার সংগীতজীবনের শুরু হয়। গানের জগতে তার হাতেখড়ি হয় বরিশালের ওস্তাদ গৌরবাবুর কাছে। তার বাবা শামসুল করিম সরকারি চাকরি করতেন। বাবার বদলির সুবাদে দেশের কয়েকটি জেলায় বিভিন্ন শিক্ষকের কাছে সংগীতের তালিম নেওয়ার সুযোগ পান তিনি। যার মধ্যে রাজবাড়ী ও খুলনায় সংগীত শিক্ষা নেন বাবু বামনদাস গুহ রায়, রণজিৎ দেবনাথ, সাধন সরকার, নাসির হায়দার ও প্রাণবন্ধু সাহার কাছে।

১৯৭০ সালে তিনি খুলনা বেতারে তালিকাভুক্ত হন তিনি। সেখানে আধুনিক গানের পাশাপাশি নজরুল সংগীত পরিবেশন করতেন। ১৯৭৫ সালে ঢাকায় এসে গান গাওয়ার আমন্ত্রণ পান। খুলনা থেকে ঢাকায় চলে আসেন শাম্মী আখতার। নিয়মিত গাইতে শুরু করেন বেতার ও টেলিভিশনে।

আজিজুর রহমান পরিচালিত ‘অশিক্ষিত’ সিনেমায় গান গাওয়ার মধ্য দিয়ে ‘প্লেব্যাক’ শিল্পী হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেন তিনি। প্রখ্যাত সংগীত পরিচালক সত্য সাহা শাম্মী আক্তারকে এই সুযোগটি দেন। জাকির হোসেন রাজু পরিচালিত ‘ভালোবাসলেই ঘর বাঁধা যায় না’ সিনেমায় ‘ভালোবাসলেই সবার সাথে ঘর বাঁধা যায় না’ গানটি গেয়ে ২০১০ সালে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেন শাম্মী আক্তার।

তাঁর তুমুল জনপ্রিয় কিছু গানের মধ্যে রয়েছে- ‘আমি যেমন আছি তেমন রবো বউ হবো না রে’, ‘ঢাকা শহর আইসা আমার আশা ফুরাইছে’, ‘চিঠি দিও প্রতিদিন, চিঠি দিও’, ‘এই রাত ডাকে এই চাঁদ ডাকে, হায় তুমি কোথায়’, ‘আমার মনের বেদনা বন্ধু ছাড়া বুঝে না’, ‘আমি তোমার বধূ তুমি আমার স্বামী, খোদার পরে তোমায় আমি বড় বলে জানি’, ‘আমার নায়ে পার হইতে লাগে ষোল আনা’ প্রভৃতি।

তিনি প্রায় ৪০০টি ছবিতে প্লেব্যাক করেছেন। তার গাওয়া গানের দু’টি ক্যাসেট প্রকাশিত হয়েছে। গুণী এই কণ্ঠ শিল্পীর অনেক গান এখনও বাজে নতুন প্রজন্মের কণ্ঠে। এভাবে প্রজন্ম থেকে প্রজন্মে বেঁচে থাকবেন শাম্মী আক্তার।

You may also like

বাইডেন-ট্রুডো’র প্রথম বৈঠক

প্রথমবারের মতো বৈঠক করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন