আরো ৮২ সেনা অফিসার আটক

প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগানের সরকারকে উৎখাতের লক্ষ্যে ব্যর্থ অভ্যুত্থানে জড়িত থাকার অভিযোগে আরো ৮২ সেনা কর্মকর্তাকে আটকের অভিযান চালানো হয়েছে তুরস্কের বিভিন্ন অঞ্চলে। ২০১৬ সালের ওই ব্যর্থ অভ্যুত্থানের পরিকল্পণাকারী হিসেবে অভিযুক্ত যুক্তরাষ্ট্রে নির্বাসিত ফেতুল্লাহ গুলেনের পক্ষে কাজ করার অভিযোগ রয়েছে তাদের বিরুদ্ধে।

৩৯টির বেশি প্রদেশে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর এই অভিযানে আটককৃতদের মধ্যে কমপক্ষে ৭০ জনই সামরিক বাহিনীতে কর্মরত বর্তমান অফিসার। বাকিরা সাবেক সেনা কর্মকর্তা। পশ্চিমাঞ্চলীয় ইজমির প্রদেশের প্রধান আইন কর্মকর্তার নির্দেশে এই আটক অভিযান শুরু হয়। ওই নির্দেশনায় সেনাবাহিনীর বিভিন্ন পর্যায়ে কর্মরত ৮৪৮ জনকে বরখাস্তের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

২০১৬ সালের ওই ব্যর্থ অভ্যুত্থানে বিভিন্ন বাহিনীর সেনা সদস্য ও সাধারণ জনগণসহ অন্তত ২৫০ জন নিহত হয়। এরপর, গুলেনপন্হি লক্ষাধিক সেনা সদস্য, সরকারি কর্মকর্তা, শিক্ষক ও রাজনীতিবীদকে আটক করে বিচারের মুখোমুখি করা হয়। দীর্ঘ বিচার প্রক্রিয়ায় অভিযুক্তদের অনেকের কারাদণ্ড হয়েছে। চাকরিচ্যুত হয়েছেন গুলেনপন্হিরা।

প্রেসিডেন্ট এরদোগানের অভিযোগ, দীর্ঘদিন ধরেই রাষ্ট্রের বিভিন্ন পর্যায়ে তৎপর গুলেনপন্হিরা একটি বিকল্প সরকার প্রতিষ্ঠার অপচেষ্টা চালাচ্ছে। ১৯৯৯ সাল থেকেই যুক্তরাষ্ট্রের পেনসিলভেনিয়ায় স্বেচ্ছায় নির্বাসনে আছেন ফেতুল্লাহ গুলেন।

 

 

 

 

 

You may also like

২৮ জানুয়ারি, বৃহস্পতিবার ২০২১

সকাল ৮:৩০ : অনুষ্ঠান ‘দিন প্রতিদিন’। সকাল ১০:৩০