প্রতিনিয়ত বাড়ছে ফুসফুসের রোগ

জনসংখ্যা বৃদ্ধি, ধূমপান, শিল্পায়ন, পরিবেশ দূষন এবং সুচিকিৎসার অভাবে প্রতিনিয়ত বাড়ছে ফুসফুসের রোগ। গত এক দশকে ফুসফুসের বিভিন্ন রোগে আক্রান্তের সংখ্যা হয়েছে দ্বিগুনেরও বেশি।

বেড়েছে মৃত্যু ঝুঁকিও। এই বাস্তবতায় প্রথমবারের মতো আজ সারাবিশ্বে পালিত হচ্ছে ‘ফুসফুস দিবস’। রোগ প্রতিরোধে জনসচেতনা বৃদ্ধির পাশাপাশি সমন্বিত উদ্যোগের ওপর জোর দিয়েছেন চিকিৎসকরা।

তৃতীয় বিশ্বের দেশ হিসেবে এমনিতেই স্বাস্থ্য ঝুঁকিতে বাংলাদেশ। সেইসাথে অপরিকল্পিত নগরায়ন এবং ঘনবসতির বাড়তি সমস্যা। এরমধ্যে শিল্পায়ন, পরিবেশ দূষন এবং ধূমপান, স্বাস্থ্য ঝুঁকি আরো বাড়াচ্ছেই।

বিশ্বে প্রায় সাড়ে ৬ কোটি লোক ‘সিওপিডি’ বা ধূমপানজনিত ফুসফুসের রোগে আক্রান্ত। প্রতিবছর শ্বাসকষ্টে মারা যায় প্রায় ৩০ লাখ মানুষ। পৃথিবীর তৃতীয় সর্বোচ্চ মৃত্যুর হার। বিশ্বে প্রায় ১কোটি প্রতিবছর যক্ষ্মা রোগে আক্রান্ত হয়। ভয়াবহ তথ্য হচ্ছে ফুসফুস জনিত রোগ ‘এজমায়’ ভূগছে বিশ্বের প্রায় ৩৪কোটি মানুষ। এছাড়া নিউমোনিয়ায়ও মারা যাচ্ছে আরো অনেকে।

You may also like

দেশে আসা নতুন মাদক ”খাট” ইয়াবার চেয়েও ক্ষতিকারক

দেশে আসা নতুন মাদক ”খাট” ইয়াবার চেয়েও ক্ষতিকারক।