হাওরের মনোলোভা সৌন্দর্য হাতছানি দিয়ে ডাকছে ভ্রমন পিয়াসীদের

হাওরের মনোলোভা সৌন্দর্য হাতছানি দিয়ে ডাকছে ভ্রমন পিয়াসীদের। তাইতো ভরা বর্ষায় প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের টানে হাওর ভ্রমণে যান হাজারো পর্যটক। কিন্তু হাওরে পর্যটন সম্ভাবনা থাকলেও রয়েছে সরকারি উদ্যোগ ও সহযোগিতার অভাব। তাই স্থানীয়দের উদ্যোগেই এগিয়ে যাচ্ছে হাওরের পর্যটনশিল্প।

বাংলাদেশের সর্ববৃহৎ হাওর হাকালুকি। এটি মৌলভীবাজার ও সিলেট জেলার পাঁচটি উপজেলা নিয়ে বিস্তৃত। হাকালুকি হাওরে ছোট, বড় ও মাঝারি আকারের সব মিলিয়ে প্রায় ২৩৮টি বিল রয়েছে। জীববৈচিত্র্যে ভরপুর হাকালুকি হাওরে নানা প্রজাতির মাছ রয়েছে। আছে খনিজ সম্পদের সমারোহ।

বছরজুড়ে অতিথি পাখির বিচরণ থাকলেও বর্ষায় নতুন রূপ লাভ করে হাকালুকি হাওর। চারদিকে অথৈ পানি, তার মধ্যে মাঝিদের নৌকা—এই দৃশ্য হাওরটিকে দেয় নতুন শোভা। আর এসব নজরকাড়া দৃশ্য দেখতে মানুষ ছুটে আসে এখানে।

ভ্রমণপিয়াসীদের হাতছানি দিলেও প্রচার আর সুব্যবস্থাপনার অভাবে পর্যটকদের তেমন একটা নজর কাড়তে পারছে না হাকালুকি হাওর। আছে সরকারি সহযোগিতার অভাবও।  ভালোভাবে রক্ষণাবেক্ষণ করলে এই হাকালুকি পর্যটনকেন্দ্র হতে পারে দেশের পর্যটনশিল্পের অন্যতম আকর্ষণ।

You may also like

বিএনপির মনোনয়ন ফরম বিক্রি শুরু

নির্বাচনের পরিবেশ ঠিক না হলে ভোটে অংশ নেয়ার