সৌন্দর্য্য জানান দিতে শুরু করেছে বরিশাল-গোপালগঞ্জের শাপলা বিল

শীত পুরোপুরি না এলেও শীতের সৌন্দর্য্য জানান দিতে শুরু করেছে বরিশাল ও গোপালগঞ্জের শাপলা বিল। শত শত একর জমির পুরো বিল জুড়ে কেবল লাল শাপলার সমারোহ দেখে যে কারো মনে হতেই পারে মানসপটে আঁকা কোনো ক্যানভাসের কথা। পর্যটকরাও ভিড় করছে এ বিলে। আর শাপলা বিক্রি করে সংসার চালাচ্ছেন অনেকে।

লাল আর সবুজের সমারোহ দূর থেকেই চোখে পড়ে। কাছে গেলেই সবুজের পটভূমিতে লালের অস্তিত্ব আরো গাঢ় হয়ে ধরা দেয়। চোখ জুড়িয়ে যায় জাতীয় ফুল শাপলার বাহারি সৌন্দর্য্যে। সূর্যের সোনালি আভা শাপলা পাতার ফাঁকে ফাঁকে পানিতে প্রতিফলিত হয়ে বিলের সৌন্দর্য্য আরো কয়েক গুণ বাড়িয়ে দিয়েছে।

বরিশালের আগৈলঝারা ও উজিরপুর উপজেলার বিলগুলো এখন শাপলার রাজ্য হিসেবেই বেশি পরিচিত। এ দুই উপজেলার প্রায় দুই হাজার পাঁচশ’ হেক্টর জমিতে প্রাকৃতিকভাবে জন্মেছে শাপলা। পর্যটকদের বিনোদনের পাশাপাশি, অনেকে শাপলা বিক্রি করে জীবিকা নির্বাহ করছেন।

এদিকে, গোপালগঞ্জে জলের রানী শাপলাফুলের বিল পর্যটকদের আনাগোনায় মুখরিত। অপরূপ সৌন্দর্য্যের শাপলা বিলগুলো যথাযথ সংরক্ষণের ব্যবস্থা করে পর্যটন এলাকা ঘোষণা করার দাবি পর্যটক ও স্থানীয়দের।

You may also like

বাবা-মার পাশে কবি আল মাহমুদের দাফন

ব্রাক্ষণবাড়িয়া শহরের মৌড়াইলে পারিবারিক কবরস্থানে মা-বাবার কবরের পাশে