আজ শেষ হচ্ছে শারদীয় দূর্গোৎসব

দুর্গতি নাশিনী দেবী দুর্গার বিদায়ের মধ্য দিয়ে আজ শেষ হচ্ছে শারদীয় দূর্গোৎসব। নানা আনুষ্ঠানিকতার পর নেচে গেয়ে দেবীকে বিদায় জানান ভক্ত ও অনুরাগীরা। সমাজের বিভেদ বৈষম্য দূর করে মানবজাতির কল্যাণে প্রতি বছর ধরনীতে ফিরে আসবেন দেবী দূর্গা এমন প্রত্যাশা তাদের।

পৃথিবীর সব অশুভ শক্তি বিনাশ এবং ধরণীকে শস্য ভান্ডারে ভরিয়ে দিতে কৈলাস থেকে দেবী পাঁচদিনের জন্য এসেছিলেন পৃথিবীতে। শুক্রবার বিজয়া দশমীতে দেবীকে বিদায় দেয়ার পালা। সকালে ঢাকেশ্বরী মন্দিরে শুরু হয় দেবীকে অঞ্জলী দান। ঢাক,শঙ্খ আর উলুধ্বনিতে করা হয় দেবী বন্দনা। তারপর ঘট বির্সজন।

দেবী দূর্গার চরণে ভক্তি নিবেদন শেষে সিঁদুর পরিয়ে দেন একের অন্যের কপালে। অবিরাম ঢাকের বাদ্য,শঙ্খ আর উলুধ্বনিতে ছোট বড় সবাই মেতে ওঠেন সিঁদুর রাঙানো উৎসবে। ভক্তরা বলেন, শুধু উদযাপনের মধ্যেই দুর্গোৎসব সীমাবদ্ধ না। বরং মানুষের সাথে মানুষের বন্ধন অটুট রাখতেও ভূমিকা রাখে এই সার্বজনীন র্ধমীয় উৎসব।

ভক্ত আর পূজারীরা মনে করেন বিসর্জনের মধ্যেও দেবী দুর্গা তাদের দিয়ে গেছেন অপশক্তিকে জয় করবার শিক্ষা। বিকালে বুড়িগঙ্গার ওয়াইজ ঘাটে। বুড়িগঙ্গায় মঙ্গলময়ী দেবী দুর্গা বির্সজনের মধ্য দিয়ে শেষ হবে সনাতন ধর্মের সবচেয়ে বড় ধর্মোৎসব। এবছর সারাদেশে ৩১ হাজারেরও বেশি মন্ডপে দুর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

You may also like

জম্মু ও কাশ্মীরে সহকর্মীদের হাতে তিন জওয়ান নিহত

ভারত নিয়ন্ত্রীত জম্মু ও কাশ্মীরে সহকর্মীদের হাতে তিন