ভারতে ভেজাল মদ পানে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৭২

ভারতের উত্তর প্রদেশ ও উত্তরাখণ্ডে মেয়াদোত্তীর্ণ বিষাক্ত মদ পানে গেলো তিন দিনে মৃত্যু হয়েছে অন্তত ৭২ জনের। গুরুতর অসুস্থ আরো ২৪ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, মেয়াদোত্তীর্ণ চোরাই মদ খেয়ে উত্তরপ্রদেশে ৪৪ জন এবং পাশের রাজ্য উত্তরখণ্ডে ২৮ জন মারা গেছে। তারা জানিয়েছে, উত্তরপ্রদেশের শাহরানপুর থেকে একদল গ্রামবাসী শ্রাদ্ধ অনুষ্ঠানে যোগ দিতে উত্তরাখন্ডে যায়।

সেখান থেকে প্রচুর ভেজাল মদ নিয়ে সেগুলো আবারো উত্তরপ্রদেশের শাহরানপুরে এনে বিক্রি করে তারা। তা পান করেই অসুস্থ হয়ে পড়ে সবাই। এ ঘটনায় পুলিশ আট মদ চোরাকারবারিকে আটক করেছে। এছাড়াও, এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ১২জন পুলিশসহ ৩৫জন কর্মকর্তাকে বরখাস্ত করেছে প্রদেশ দু’টির সরকার। অভিযোগ রয়েছে, রাজ্য দুটিতে সস্তায় অবৈধ মদ পাওয়া যায়। আর চোরাকারবারিরা সেসব মদের নেশা বাড়াতে কীটনাশক ব্যবহার করে থাকে। বিষাক্ত মদ পানে ভারতে প্রায়ই এধরনের মৃত্যুর ঘটনা ঘটে। এরআগে, ২০১১ সালে মদপানে উত্তরপ্রদেশেই ১৭৫ জনের মৃত্যু হয়।

You may also like

লিবিয়ায় সংঘর্ষে দু’সপ্তাহে নিহত ২২০, আহত সহস্রাধিক

লিবিয়ার রাজধানী ত্রিপোলির দক্ষিনাঞ্চলে জাতিসংঘ সমর্থিত সরকারি বাহিনী