লিবিয়ায় অভিবাসী শিবিরে বিমান হামলা, নিহত ৪০

লিবিয়ার ত্রিপোলীতে শরণার্থীদের বন্দিশালায় ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় অন্তত ৪৪জন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে একশো ৩০ জনেরও বেশি। এই ঘটনায় পাল্টাপাল্টি দোষারোপ করেছে সরকারি বাহিনী এবং বিদ্রোহী গোষ্ঠী। একে যুদ্ধাপরাধ হিসেবে দেখা হবে বলে জানিয়েছে জাতিসংঘ। মঙ্গলবার রাতে ত্রিপোলীয় পূর্বাঞ্চলীয় তাজৌরা এলাকায় অবস্থিত বন্দিশালায় হামলা হয়। আন্তর্জাতিক সমর্থনপুষ্ট লিবিয়ার সরকারি বাহিনীর একাধিক ঘাঁটিও ছিলো সেখানে। হতাহতের বেশিরভাগই আফ্রিকার বিভিন্ন দেশ থেকে যাওয়া অভিবাসন প্রত্যাশী।

ইউরোপে অনুপ্রবেশের জন্য লিবিয়াকে দীর্ঘদিন ধরে প্রধান রুট হিসেবে ব্যবহার করে আসছে মানব পাচারকারীরা। এই হামলার জন্য পূর্বাঞ্চল ভিত্তিক সশস্ত্র গোষ্ঠী লিবিয়ান ন্যাশনাল আর্মিকে সন্দেহ করা হচ্ছে। তবে, অভিযোগ অস্বীকার করে হামলার দায় ত্রিপোলীর বিদ্রোহী গোষ্ঠীর ওপর চাপিয়েছে তারা। গেলো তিনমাস ধরে ত্রিপোলী দখলের চেষ্টা চালিয়ে আসছে আন্তর্জাতিক সমর্থনপুষ্ট সরকারি বাহিনী। গত সপ্তাহে তাঁদের গুরুত্বপূর্ন একটি ঘাঁটি দখলে নিয়েছে বিদ্রোহীরা।

You may also like

প্রেসক্লাবে ডাকসুর সাবেক নেতাদের মানববন্ধন

আবরার হত্যার দায় নিয়ে সরকারকে ক্ষমতা ছাড়ার আহবান