পাসের হারে এগিয়ে রাজশাহী বোর্ড, সবচেয়ে কম সিলেটে

প্রকাশিত হয়েছে এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল। গড় পাসের হার ৮২ দশমিক দুই শূন্য। জিপিএ-ফাইভ পেয়েছে এক লাখ পাঁচ হাজার ৫৯৪ জন শিক্ষার্থী। সবচে বেশি পাস করেছে রাজশাহী বোর্ডে আর কম সিলেট বোর্ডে। রাজধানীর সেগুনবাগিচায় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে ফলাফল ঘোষণা করেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। এসময় পাস করা শিক্ষার্থীদের লন্ডন থেকে অভিনন্দন জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বলেন, আগামীতে দেশ পরিচালনার জন্য শিক্ষার্থীদের যোগ্য করে গড়ে তুলতে হবে।

এসএসসি পরীক্ষা শেষ হওয়ার দু’মাসের মধ্যেই ফলাফল প্রকাশ করলো শিক্ষা মন্ত্রণালয়। এরপর আনুষ্ঠানিকভাবে আটটি সাধারণ বোর্ড, মাদ্রাসা ও কারিগরি বোর্ডে ২১লাখের বেশি শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশ নেয়। এর মধ্যে পাস করেছে সতের লাখ ৪৯ হাজার ১৬৫ জন। গড় পাসের হার ৮২.২০। ফলাফল বিশ্লেষনে দেখা যায়, এবছর সবচে বেশি পাস করেছে রাজশাহী বোর্ডে- ৯১.৬৪ভাগ। এরপর যশোরে ৯০.৮৮, কুমিল্লায় ৮৭.১৬, দিনাজপুর ৮৪.১০, ঢাকা ৭৯.৬২, চট্টগ্রাম ৭৮.১১, বরিশাল ৭৭.৪১, সিলেট ৭০.৮৩ শতাংশ।

এছাড়া মাদ্রাসা বোর্ডে ৮৩.০৩ ও কারিগরি শিক্ষা বোর্ডে ৭২.২৪ ভাগ শিক্ষার্থী পাস করেছে। গত বছরের তুলনায় পাসের হার বেড়েছে চার দশমিক চার তিন ভাগ। পাসের হার বৃদ্ধি পাওয়া শিক্ষার্থীদের কৃতিত্ব বলে মন্তব্য করেন শিক্ষামন্ত্রী। এবছর জিপিএ-৫ পেয়েছে এক লাখ পাঁচ হাজারের বেশি শিক্ষার্থী। আর শতভাগ পাশ করা প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ২৫৮৩ টি। অন্যদিকে একজন শিক্ষার্থীও পাস করেনি এমন প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ১০৭ টি।

রীতি অনুযায়ী প্রধানমন্ত্রীর হাতে রেজাল্ট তুলে দেয়ার পর তা প্রকাশ করা হয়। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী দেশের বাইরে অবস্থান করায় এবার ফল ঘোষণা করেন শিক্ষামন্ত্রী। যদিও ফল ঘোষণার আগেই লন্ডন থেকে টেলিফোনে শিক্ষার্থীদের শুভেচ্ছা জানান প্রধানমন্ত্রী। ফলাফল বিশ্লেষন করে শিক্ষার মানোন্নয়নে সরকার আরো পদক্ষেপ নেবে বলে জানান শিক্ষামন্ত্রী।

রিশান নাসরুল্লাহ
বাংলাভিশন, ঢাকা

You may also like

নিউইয়র্কের উদ্দেশে ঢাকা ছেড়েছেন প্রধানমন্ত্রী

জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনে যোগ দিতে নিউইয়র্কের উদ্দেশ্যে ঢাকা