অসৎভাবে অর্থ উপার্জনকারীদের ছাড় নয়, হুঁশিয়ারী প্রধানমন্ত্রীর

উন্নয়নের জন্য বরাদ্দ অর্থ কোথায় যায় খুঁজে বের করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের আয়োজনে দেওয়া সংবর্ধনায় প্রধানমন্ত্রী বলেন, দুর্নীতিবাজ নিজের দলের হলেও ছাড় দেওয়া হবে না। তিনি বলেন, জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে যেমন যুদ্ধ শুরু হয়েছে, তেমনি বৈষম্য দূর করতে দুর্নীতির বিরুদ্ধেও অভিযান শুরু হয়েছে। জাতিসংঘ সাধারণ অধিবেশনের ৭৪তম আসরে যোগদান শেষে দেশে ফিরে যাওয়ার আগে প্রথা অনুযায়ী প্রবাসীদের দেওয়া সংবর্ধনায় যোগ দিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের আয়োজন হলেও কমিটি জটিলতায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আব্দুল মোমেন।

মুক্তিযুদ্ধ এবং পরবর্তী সময়ে দেশ গঠনে বঙ্গবন্ধুর অবদানের কথা স্মরণ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, একজন মানুষের ত্যাগের মধ্য দিয়ে যে কোটি মানুষ উপকৃত হতে পারে সেটা কেবল বঙ্গবন্ধুকে দেখলেই বোঝা যায়। বঙ্গবন্ধু হত্যাকান্ড জিয়াসহ স্বাধীনতা বিরোধীদের চক্রান্ত ছিল উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী প্রশ্ন করেন, যারা এখন মানবতার কথা বলেন, তখন তাদের মানবতা কোথায় ছিল?  পদ্মা সেতু নিজস্ব টাকার করার একটা সিদ্ধান্ত আন্তর্জাতিক অঙ্গনে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি উজ্জল করেছে উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী। দুর্নীতির বিরুদ্ধে নেয়া নিজের কঠোর অবস্থানের কথা পুনর্ব্যক্ত করেন সরকার প্রধান।  জনগন কাকে চায়, সেটাই গণতন্ত্র। আওয়ামী লীগ জনগনের ক্ষমতায় বিশ্বাস করে।

You may also like

০৫ ডিসেম্বর, বৃহস্পতিবার ২০১৯

সকাল ৮:৩০ : দিন প্রতিদিন বেলা ১১:০৫ :