করোনায় ক্ষতিগ্রস্তদের ১২’শ কোটি টাকা দিলেন প্রধানমন্ত্রী

দেশের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো প্রায় ৫০ লাখ পরিবারকে এককালীন আড়াই হাজার টাকা করে মোট প্রায় ১২ শ কোটি টাকা নগদ সহায়তা দিয়েছে সরকার। গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে আজ এ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, লক-ডাউন শিথিলতার জন্য করোনার সংক্রমণ বেড়ে গেছে, তবে এটি নিয়ন্ত্রণে রাখা সম্ভব। পরিস্থিতি মোকাবিলায় সরকারের প্রতি আস্থা রাখতে দেশবাসীর প্রতি আহ্বানও জানান প্রধানমন্ত্রী। প্রতি পরিবারে চারজন সদস্য ধরা হলে নগদ সহায়তার উপকারভোগী হয়েছেন দেশের চার কোটি মানুষ। এজন্য সরকারের ব্যয় হলো আড়াই হাজার টাকা করে প্রায় এক হাজার দুইশো কোটি টাকা। বৃহস্পতিবার গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সে যুক্ত হয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এ কার্যক্রম উদ্বোধন করেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, করোনাকালীন দুর্যোগে এককালীন এ সহায়তা সামান্য হলেও পর্যায়ক্রমে সুবিধাভোগী বাড়ানো হবে। মানুষ যেনো অভুক্ত থেকে কষ্ট না পায় সেজন্য ত্রাণ বিতরণ সুপরিকল্পিতভাবে চলছে বলেও জানান সরকার প্রধান। জীবিকার স্বার্থে সাধারণ ছুটিতে কড়াকড়ি কিছুটা শিথিল করা হয়েছে বলে জানান প্রধানমন্ত্রী। ঈদের আগে এতিমদের পাশাপাশি সাত হাজার কওমী মাদ্রাসা এবং মসজিদে আর্থিক সহায়তা দেয়ার ঘোষণাও দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। অনুষ্ঠান থেকে মোবাইল ও অনলাইন ব্যাংকিং ব্যবস্থায় স্নাতক ও সমমান পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তি ও টিউশন বিতরণও করেন প্রধানমন্ত্রী।  সৈয়দ আব্দুল মুহিত, বাংলাভিশন,ঢাকা।

You may also like

০৪ ডিসেম্বর, শুক্রবার ২০২০

সকাল ৮:৩০ : অনুষ্ঠান ‘দিন প্রতিদিন’। সকাল ১০:০৫