করোনার ওপর খাড়ার ঘা ঘূর্ণিঝড় আম্পান

ঘুর্ণিঝড় আম্পান বিকাল বা সন্ধ্যা নাগাদ আঘাত হানতে পারে বাংলাদেশে। কিছুটা দুর্বল গতিতেই আঘাতের আভাস দিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। এ সময় জলোচ্ছাস হতে পারে ১০ থেকে ১৫ ফুট পর্যন্ত। প্রস্তুতির অংশ হিসেবে পায়রা, মোংলা, সাতক্ষীরা, খুলনা বাগেরহাট, ভোলা, বরিশালসহ আশপাশের দ্বীপ ও চরগুলোতে চলছে ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত। আর, কক্সবাজার ও চট্টগ্রামে ৯ নম্বর।

রাজধানীতে থেমে থেমে চলছে বৃষ্টি। কখনো গুড়ি গুড়ি । কখনো মাঝারি। আবার কিছু সময় পর পর উকি দিচ্ছে সূর্য। কয়েক দিনের গরমে অতিষ্ট নগরবাসীর কাছে বৃষ্টি যেন কিছুটা শান্তির পরশ।  ঘুর্ণিঝড় আম্পানের প্রভাবে রাজধানীতেও বেড়েছে বাতাসের গতিবেগ। আবহাওয়া অধিদপ্তর বলছে, আম্পান ২২০ কিলোমিটার ঝড়ো গতিতে এগিয়ে এলেও বাংলাদেশে আঘাতের সময় গতি বেগ থাকবে একশো চল্লিশ থেকে একশ ষাট কিলোমিটার। ঘুর্ণিঝড়টি প্রথম দিকে উত্তর পূর্ব দিক দিয়ে এগুতে থাকলেও গতি পরিবর্তন করে এগুচ্ছে উত্তরমুখে।

 

You may also like

দেশে স্বাস্থ্যবিধি মানার প্রবণতা কমছে

করোনা সংক্রমণ ও মৃত্যু না কমলেও দেশে স্বাস্থ্যবিধি