জিনোম সিকোয়েন্সে দেশে করোনার নতুন মিউটেশনের সন্ধান

জিনোম সিকোয়েন্সে দেশে করোনার নতুন একটি মিউটেশন পেয়েছেন বিজ্ঞানীরা। যদিও ডি-৬৮১ করোনা ভাইরাসটি কতটা ভয়াবহ সেটি এখনও নিশ্চিত নন তারা। দ্বিতীয় ধাপে করোনার সংক্রমণ আগের চেয়ে বেশি হবে ধারণা বিশেষজ্ঞদের। একইসঙ্গে ঠান্ডার কারণেও ভয়ঙ্কর হয়ে উঠতে পারে করোনা। বিশ্বজুড়েই চলছে করোনার আগ্রাসন। দ্বিতীয় ধাপের সংক্রমনে অনেকটাই নাস্তানাবুদ অনেক দেশ। শীতের সময়েই বাংলাদেশে করোনার সেকেন্ড ওয়েভ আসবে এমন ধারণা বিশেষজ্ঞদের। এ বিষয়ে এরইমধ্যে সতর্কতাসহ নানা পদক্ষেপ নিয়েছে সরকার।

প্রথম ধাপে সংক্রমণে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের তুলনায় মৃত্যুর হার ছিলো খুবই কম। কিন্তু করোনার সেকেন্ড ওয়েভ ভয়ঙ্কর হতে পারে এমন আশঙ্কা বিশেষজ্ঞদের। করোনা ভাইরাসের নতুন মিউটেশনও পেয়েছেন বিজ্ঞানীরা।  ডি-৬৮১ ভাইরাসটি কতটা মানুষের শরীরে কতটা প্রভাব ফেলছে সেটি এখনও নিশ্চিত নন বিজ্ঞানীরা। তবে, যে এলাকার রোগীর স্যাম্পলে মিউটেশন পটাওয়া গেছে, সেখানকার ওপর বাড়তি নজর রাখা দরকার বলে মনে করেন তারা। করোনার দ্বিতীয় ওয়েভ মোকাবেলায় স্বাস্থ্যবিধি মানার পাশাপাশি সবাইকে সচেতন ও সতর্ক থাকার পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের। রিশান নাসরুল্লাহ বাংলাভিশন, ঢাকা

You may also like

ইনজুরি কাটিয়ে অনুশীলনে মাশরাফি

ইনজুরি কাটিয়ে অনুশীলনে যোগ দিয়েছেন জাতীয় দলের সাবেক