কুয়েতে বাংলাদেশ দূতাবাসের সামনে অবস্থান কর্মসূচি ও বিক্ষোভ করেছে বাংলাদেশী শ্রমিকরা

কুয়েতে বাংলাদেশ দূতাবাসের সামনে অবস্থান কর্মসূচি ও বিক্ষোভ করেছে বাংলাদেশী শ্রমিকরা। আল শাহ আল গারবীয়া ক্লিনিং কোম্পানীর এসব শ্রমিকদের অভিযোগ, বিভিন্ন ভাবে হয়রানির শিকার হচ্ছেন তারা।

২০১৬ সালে গুডলাক ইন্টারন্যাশনাল রিক্রুটিং এজেন্সী এবং জামান ট্রাভেলস অ্যান্ড ট্যুরস লিমিটেডের সহায়তায় কুয়েতে আসেন বিক্ষোভরত বেশিরভাগ শ্রমিক। তাদের অভিযোগ, বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে অন্তত একশো’ কুয়েতি দিনারে কাজের কথা বলা হলেও তাদের ভাগ্যে ঐ পরিমাণ বেতন জোটে নি। ঠিকমত ঐ বেতনও পরিশোধ করা হয়না।

এছাড়া তাদের থাকার জায়গা নিম্নমানের। এক রুমে ১০১২ জন শ্রমিক থাকে গাদাগাদি করে।দৈনিক আট ঘণ্টার পরিবর্তে ১০/১২ ঘণ্টা কাজ করলেও ওভার টাইম দেয়া হয় না বলে অভিযোগ শ্রমিকদের। ঘুষ ছাড়া তাদের ভিসাও নবায়ন করা হয়না।

এ পরিস্থিতিতে বিক্ষোভে নামেন শ্রমিকরা।

অসহায় এ শ্রমিকদের আশ্বস্ত করে দূতাবাসের শ্রম কাউন্সিলর আব্দুল লতিফ বলেন, শ্রমিকদের স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিষয়গুলো নিয়ে আল শাহ আল গারবীয়া ক্লিনিং কোম্পানী কর্তৃপক্ষের সাথে কথা বলবেন তারা।

You may also like

‘কান’-এর রেড কার্পেটে রূপকথা তৈরি করলেন ঐশ্বর্যা

৭০তম কান চলচ্চিত্র উৎসবের রেড কার্পেটে ঐশ্বর্যাকে দেখে