বাংলাদেশকে হারিয়ে শ্রীলঙ্কার সিরিজ জয়

দ্বিতীয় ওয়ানডেতে বাংলাদেশকে ৭ উইকেটে হারিয়ে, চার বছর পর দেশের মাটিতে ওয়ানডে সিরিজে জয় পেয়েছে শ্রীলংকা। কলম্বোর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করে, মুশফিক রহিমের অপরাজিত ৯৮ রানের পরও, সীমাহীন ব্যাটিং ব্যর্থতায় ৮ উইকেটে ২৩৮ রান করে সফরকারীরা। জবাবে ৩ উইকেট হারিয়ে এই সহজ জয়ে, এক ম্যাচ হাতে রেখেই সিরিজ নিশ্চিত করেছে লংকানরা।

মাহেলা জয়বর্ধনে, কুমার সাঙ্গাকারা ও দিলশান তিলেকারত্নের বিদায়ের পর; কঠিন সময় যাচ্ছিলো শ্রীলংকান ক্রিকেটে। অবশেষে টাইগারদের হারিয়ে দেশের মাটিতে চার বছর পর ওয়ানডে সিরিজে জয় পেয়েছে তারা। প্রথম ম্যাচে পরাজয়ে, ঘুড়ে দাঁড়াতে দ্বিতীয় ম্যাচে জয়ের বিকল্প ছিলো না বাংলাদেশের। কিন্তু মুশফিক রহিম এবং টেইলএন্ডে মেহেদী মেরাজ ছাড়া আর কেহ দায়িত্ব নিয়ে ব্যাট করতে না পরায়, পরাজয়ই অনিবার্য ছিলো টাইগারদের। টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে চরম হতাশ করেন টপ অর্ডাররা। ১৯ রানে ফিরে যান অফ ফর্মে থাকা তামিম।

এরপর সৌম্য, মিঠুন, মাহমুদুল্লাহ, সাব্বির, মোসাদ্দেক- সবাই ব্যাট হাতে চরম ব্যর্থ হলে; ৮৮ রানেই পাঁচ উইকেট হারিয়ে কঠিন বির্পযয়ে পড়ে বাংলাদেশ। তবে মুশফিক দায়িত্ব নিয়ে ব্যাট করায় আরো বড় লজ্জার হাত থেকে রক্ষা পেয়েছে টাইগাররা। সপ্তম উইকেটে মেহেদী মিরাজের সাথে মুশফিকের ৮৪ রানের জুটিতে দলের স্কোর দু’শো পার হয়।

৪৩ রান করেন মিরাজ। এই ম্যাচে বাংলাদেশের তৃতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে ছয় হাজার রানের মাইলফলক অতিক্রম করেন মুশফিক। যদিও শেষ দিকে কোন সাপোর্ট না পাওয়ায় দূর্ভাগ্যজনক ভাবে ৯৮ রানে অপরাজিত থেকে সেঞ্চুরি বঞ্চিত থাকতে হয়েছে তাকে। জবাবে ফার্নান্ডোর ৮২, ম্যাথুজের আপরাজিত ৫২ রানে জয় নিশ্চিত করে লংকানরা।

You may also like

ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সফর নিয়ে আশাবাদী হওয়ার কিছু নেই : ফখরুল

নিজেদের ব্যর্থতা ঢাকতেই চামড়ার বাজারে অস্থিরতায় বিএনপিকে জড়িয়ে