১৫২ বছর পর দেখা যাবে ‘সুপার ব্লু ব্লাড মুন’

১৫২ বছর পর ‘সুপার ব্লু ব্লাড মুন’ নামে পরিচিত চাঁদ দেখবে বিশ্ববাসী। ৩১ জানুয়ারি এ চাঁদ অবলোকন করা যাবে।

‘সুপার ব্লু ব্লাড মুন’! কেমন অচেনা লাগছে তাই না? তবে এটিকে ভেঙে বললে বুঝতে সহজ হবে। ‘সুপার’, ‘ব্লু’, ‘ব্লাড’। পৃথিবীর কক্ষপথের খুব কাছাকাছি যখন চাঁদ চলে আসে তখন এটিকে স্বাভাবিকের চেয়ে বড় দেখায়। তাই ওই চাঁদকে বলে সুপার মুন। ৩১ জানুয়ারি যে সুপারমুন দেখা যাবে সেটি স্বাভাবিক সময়ে চাঁদের চেয়ে ১৪ গুণ বেশি উজ্জ্বল হবে বলে জানিয়েছে নাসা।

আর সুপারমুনের সঙ্গে ব্লু (নীল) শব্দটি জুড়ে দেয়া হয়েছে কারণ একই মাসে দুই বার সুপারমুন দেখা গেলে দ্বিতীয়টিকে ব্লু সুপারমুন বলা হয়। ২০১৮ সালের প্রথম দিনই প্রথম সুপারমুন দেখা গেছে। সেটিকে বছরের ‘সবচেয়ে বড় ও উজ্জ্বল’ বলে আখ্যা দিয়েছিল নাসা। মাসের শেষেও আরেকবার সুপারমুন দেখার সুযোগ মিলছে। প্রথমটির চেয়ে এটি আরও বেশি উজ্জ্বল।

ব্লাড (রক্ত রঙের) শব্দটির কোনো বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা নেই। ৩১ জানুয়ারির চাঁদকে দেখতে লালচে ও তামাটে মনে হবে। তাই সুপার ব্লু মুনের সঙ্গে ব্লাড শব্দটি যুক্ত করে দেয়া হয়েছে।১৮৬৬ সালের ৩১ মার্চ শেষ বার দেখা গিয়েছিল এ চাঁদ।

You may also like

লিবিয়ায় সংঘর্ষে দু’সপ্তাহে নিহত ২২০, আহত সহস্রাধিক

লিবিয়ার রাজধানী ত্রিপোলির দক্ষিনাঞ্চলে জাতিসংঘ সমর্থিত সরকারি বাহিনী